Main Menu

ঘূণীঝড় ফণী আতঙ্কের মাঝে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের মলচত্ত্বর যেন ফুল সমুদ্র

ঘূণীর্ঝড় ফণী আতঙ্কের মাঝে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের মলচত্ত্বর যেন ফুল সমুদ্র

 

ফুলে ফুলে ঢলে ঢলে বহে কিবা মৃদু বায়, তটিণী-র হিল্লোল তুলে কল্লোলে চলিয়া যায়

শুধু গানে নয়, বাস্তবেও এমন হতে পারে। এর বড় প্রমাণ দেখা গেল গত কাল ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের মল চত্ত্বরে। প্রতিদিন বিকালে যেখানে ছাত্র-ছাত্রী, মানুষ কিংবা রিকসা-গাড়ীতে ভরপুর থাকে সেখানে যেনে ফুল সমুদ্র।

ফুলে ফুলে জলে জলে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের মল চত্ত্বর  যেনো হয়ে উঠেছিল প্রেমিকার সযত্নে গড়া কোন ফুলের বাগান। যেখানে ফুলের পাপড়ি দিয়ে সাজানো হয়েছে নরম বিছানা। যে বিছানায় হাত দেওয়া মানা, যে বিছানায় সৌন্দর্য রয়েছে ঢালা। চোখ আটকে যায়।

ক্যামেরা বন্দি হওয়ার মতো এক দৃশ্য গতকাল ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের মল চত্ত্বরে দেখা দেয়। যেখানে ঘূর্ণীঝড় ফণীর আতঙ্কে সারাদেশ সেখানে এমন সৌন্দর্য্য বেরসিকের মনে রসিকতার মতো। তবুও তরুন তরুনীর চোখ এড়িয়ে যায়নি। চোখ আটকে যায়, মন বাধা পায়।

পৃথিবীর মধ্যে সৌন্দর্য বৃদ্ধিতে সবচেয়ে ফুল কার্যকর ভূমিকা পালন করে। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের মল চত্ত্বরে দাঁড়িয়ে আকাশের দিকে তাকালে কৃষ্ণচূড়ার ফুলের ফাঁক দিয়ে নীল আকাশ দেখা যায়।

একটু বৃষ্টি কিংবা ঝড়ে সবুজ ঘাস কিংবা পিচধালা রাস্তায় কৃষ্ণচূড়া ফুল ঢেলে রাঙ্গিয়ে দিতে একটুও কার্পণ্য করে না। ৪ মে সারাদেশ ঘূণীঝড় ফণী আতঙ্কে থাকলেও বৃষ্টি আর ঝড়ো বাতাসে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের মল চত্ত্বর ভিন্ন এক রোমান্টিক পরিবেশ উপহার দেয় প্রকৃতি। তরুণ তরুণীর মনে উদয় হয় প্রেম। সুর তুলে গান হয়, রচিত হয় সাহিত্য। সাহিত্য যেখানে খুজে পেতে কষ্ট হতো সেখানে সাহিত্য আপনা আপনিই হাজির হয়।






Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked as *

*